এদেশে কোনো দিনই দিনমজুরদের ওপর অত্যাচার করা হয়নি —ইয়াহ্ইয়া চৌধুরী এমপি

235
Spread the love

mp-ahia pic(1)সিলেট প্রতিনিধি : সিলেট-২ আসনের সংসদ সদস্য, পরিবেশ ও বন মন্ত্রণালয়ের সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য ইয়াহ্ইয়া চৌধুরী এহিয়া বলেছেন, কোটি কোটি টাকা বিনিয়োগ করে মালিকরা সিএনজি চালিত অটোরিকশা কিনেছেন। অনেক চালক মাথার গাম পায়ে ফেলে নিজের অর্জিত টাকায়, কেউ আবার জায়গা সম্পত্তি বিক্রি করে সিএনজি অটোরিকশা কিনেছেন। সবাই সরকারকে টেক্সও দিয়ে কিনা সিএনজি চালিত অটোরিকশা চালিয়ে দিন আনিপাত করছেন। সেই মালিক ও শ্রমিকদের ওপর রীতিমত অত্যাচার করা হচ্ছে। তাদেরকে মহাসড়কে সিএনজি অটোরিকশা চালাতে দেয়া হচ্ছেনা। মহাসড়কে সিএনজি অটোরিকশা বন্ধ করার আগে বিকল্প রাস্তা তৈরি করে দেয়া উচিত ছিল। তা না করে হাজার-হাজার শ্রমিক-মালিকদেরকে অসহায় করা ঠিক হয়নি। শুধু মালিক-শ্রমিকরাই নয়; সিএনজি অটোরিকশা বন্ধ করে দেয়ায় সাধারণ মানুষও বিড়ম্বনায় পড়তে হয়েছে। ঘন্টার পর ঘন্টা মানুষ রাস্তায় দাঁড়িয়ে থাকতে হচ্ছে। শিক্ষার্থীরা স্কুলে যেতে হলে গাড়ি পাচ্ছেনা।
এদেশে কোনো দিনই দিনমজুরদের ওপর অত্যাচার করা হয়নি। ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণে বঙ্গবন্ধু দেশের দিনমজুরদের কথা চিন্তা করে বলেছিলেন, হরতাল চলবে। রিকশা-ভ্যান বন্ধ থাকবেনা। যদি ওই সময় সিএনজি অটোরিকশা থাকতো হয়তবা বঙ্গবন্ধু সিএনজি অটোরিকশাও চলার নির্দেশ দিতেন। সেই বঙ্গবন্ধুর কন্যা শেখ হাসিনা আজ দেশের সফল প্রধানমন্ত্রী। তিনি প্রধানমন্ত্রী থাকতে দেশের শ্রমিকরা অনাহারে-অর্ধাহারে দিন কাটাবে তা হতে পারেনা। তাই আমি প্রধানমন্ত্রীর কাছে আহবান জানাই অসহায় মালিক-শ্রমিকদের দাবি আদায়ে আপনে কিছু করুণ।
ইয়াহ্ইয়া চৌধুরী বলেন, প্রিয় শ্রমিক ভাইরা আমি আপনাদের হয়ে জাতীয় সংসদে কথা বলবো। যদি নিয়মতান্ত্রিকভাবে আপনাদের সমস্যার সমাধান ও দাবি না মানা হয় তাহলে কথা দিচ্ছি আপনাদেরকে সাথে নিয়ে কঠোর আন্দোলনে নামবো।
শনিবার বিকালে সিলেটের ওসমানীনগর উপজেলার দয়ামীরবাজার অটোরিকশা শ্রমিক ইউনিয়ন (৭০৭) এর শ্রমিক, মালিক ও এলাকাবাসীর উদ্যোগে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।
সমাজসেবক হেলাল ওসমানীর সভাপতিত্বে ও দয়ামীরবাজার অটোরিকশা শ্রমিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক ইউসুফ আলীর পরিচালনায় সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, বালাগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আবদাল মিয়া, দয়ামীর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আব্দুল হাই মোশাহিদ, সমাজসেবি মকবুল হোসেন, আজমল হোসেন খান, সিরাজ মিয়া, আশিক মিয়া।
অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, শ্রমিক নেতা মাসুক মিয়া, আনহার মিয়া, হারুনুর রশিদ, এমরান আহমদ, জুনেল আহমদ, আশরাফ খান, বদরুল ইসলাম প্রমুখ।


Spread the love