কক্সবাজারে জমে উঠেছে ঈদের কেনাকাটা

81
Spread the love

Coxbazar-picআমিনুল কবির,কক্সবাজার প্রতিনিধি : কক্সবাজার শহরে পবিত্র মাহে রমজানের দিন যতো গড়াচ্ছে সময় যেন ততোই ফুরিয়ে আসছে। শপিংমল ও বিপনীবিতান গুলোতে জমজমাট হয়ে উঠছে ঈদের কেনাকাটা। শহরের বিভিন্ন শপিংমল ও বিপনীবিতান গুলোতেও উপচে পড়া ভীড় লক্ষ করা যাচ্ছে। সকাল থেকেই শহরের সালাম মার্কেট, ফিরোজা শফিং কমপ্লেক্স, রশিদ কমপ্লেক্স, ফজল মার্কেট,শফিক সেন্টার,সী-কুইন মার্কেট,ইডেন গার্ডেন সিটি, পৌর সভা মার্কেট, নিউ মার্কেট, বার্মিজ মার্কেট,কবির মার্কেট ও আপন টাওয়ারসহ হকার মার্কেট এর দোকানগুলোতে বেশি চোখে পড়ে।
কক্সবাজার এর ঈদ বাজারে দু’ধাপে মার্কেটগুলোতে বেচা-বিক্রি হয়। দিনে প্রায় পুরো সময়টা দূরের ক্রেতারা বাজার দখল করে রাখে। স্থানীয়রা এবং ব্যবসা বা চাকরী সুত্রে যারা এ জেলায় বাস করেন এ উচ্চবিত্ত ক্রেতারা মার্কেটে আসেন সন্ধ্যার পরে। বাহারি পোশাক আর নতুন ডিজাইনের পোশাকের পসরা সাজিয়ে দোকানীরা ক্রেতা আর্কষন করছে। তবে এবার ঈদে দেশী পোশাকের চেয়ে ভারতীয় পোশাকের চাহিদা বেশি।  শহরের বিভিন্ন বাজার ঘুরে দেখা গেছে, রমজানের প্রথম দিকে শপিংমলগুলোতে ক্রয়-বিক্রয় কম থাকলেও বর্তমানে শপিংমল ও বিপনীবিতানগুলোতে প্রচুর পরিমান ভীড় লক্ষ করা যাচ্ছে। ক্রেতাদের ভীড় সামাল দিতে অনেক মার্কেটেই দোকানিদের হিমশিম খেতে দেখা গেছে। শহরের বহুল আলোচিত অভিজাত মানের নক্ষত্র ফ্যাশনের ম্যানেজার ফায়সাল উদ্দিন খোকা জানান, আমাদের এখানে দেশী-বিদেশি হরেক রকম পোশাকের বিপুল সমারোহ রয়েছে। গত ক’দিনে বিক্রি অনেক বেড়েছে। ঈদের বাজার এখনো পুরোপুরি জমে উঠেনি। তবে বিক্রি ভালো হচ্ছে।
নিরাপত্তার সার্বিক বিষয়ে কক্সবাজার জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে মনিটরিং করা হচ্ছে নিয়মিত। এ ব্যাপারে কক্সবাজার মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি আসলাম হোসেন জানান, ক্রেতাসাধারন ও ব্যবসায়ীদের নিরাপত্তার জন্য স্পেশাল বাহিনী মাঠে কাজ করছে।


Spread the love