কক্সবাজারে পর্যটনের সূচনা করেছিলেন বঙ্গবন্ধু- শিল্পমন্ত্রী আমু

106
Spread the love

Sea pearlআমিনুল কবির, কক্সবাজার : শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু বলেছেন, পর্যটন নগরী হিসেবে কক্সবাজার আজ সারা বিশ্বের মানুষের কাছে সমাদৃত। বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে মানুষ ছুটে আসছে এই কক্সবাজারে। কক্সবাজারের পর্যটন শিল্প থেকে আয় হওয়া অর্থ বাংলাদেশের অর্থনীতিতে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখছে। সেই সাথে অধিকতর উন্নত হয়েছে এই মানুষের জীবন মান। কক্সবাজারের আজকের এই অবস্থার নায়ক হচ্ছে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। ১৯৫৬ সালে তৎকালীন পাকিস্তানের মন্ত্রী থাকাকালে তিনিই কক্সবাজারের পর্যটন কেন্দ্রের সূচনা করেছিলেন। বৃহস্পতিবার বিকালে কক্সবাজারের সর্ববৃহৎ হোটেল সী-পার্লÑরয়েল হোটেল এ- রিসোর্টের উদ্বোধনকালে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।
তিনি আরো বলেন, ‘বঙ্গবন্ধুর সূচিত কক্সবাজারের পযর্টন শিল্পকে উচ্চতর অবস্থানে নিয়ে কাজ করছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এর অংশ হিসেবে কক্সবাজারকে নিয়ে আলাদা করে পরিকল্পনা গ্রহণ করেছেন তিনি। এই পরিকল্পনাকে বাস্তবায়নে রূপ দিচ্ছে ক্রমান্বয়ে। সাবরাং এক্সক্লোসিভ ট্যুরিষ্টজোনসহ বেশ কয়েকটি প্রকল্প বাস্তবায়নের পথে। আমি খুবই আশাবাদী, প্রধানমন্ত্রীর উন্নয়ন এইসব কর্মকা-ের নতুন সংযোজন হোটেল সী-পার্লÑরয়েল লাক্সারী হোটেল এ- রিসোর্ট। কক্সবাজারে এমন যুগোপযোগী ও বিশ্বমানের হোটেল গড়ে তোলার এর মালিক পক্ষ অশেষ ধন্যবাদ জানাচ্ছি।’
উখিয়ার ইনানী শফির বিল এলাকায় প্রায় ১৫ এক জমির  উপর নির্মিত বিশ্বমানের সুদৃশ্য পাঁচ তারকা হোটেল সী-পার্লÑরয়েল লাক্সারী হোটেল এ- রিসোর্ট উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পাট ও বস্ত্র প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম, সাবেক বেসামরিক বিমান ও পর্যটন মন্ত্রী মোঃ ফারুক খান, সাংসদ আবদুর রহমান বদি, সাংসদ সাইমুম সরওয়ার কমল, সাংসদ আশেক উল্লাহ রফিক, স্বরাষ্ট্র সচিব মোজাম্মেল হক খান, বাংলাদেশ পর্যটন করপোরেশনের চেয়ারম্যান আকতারুজ্জামান কবির, বাংলাদেশ প্রতিদিন সম্পাদক নঈম নিজাম, ছাত্রলীগের কেন্দ্রী সাবেক সভাপতি লিয়াকত সিকদার, ভারপ্রাপ্ত জেলা প্রশাসক অনুপম সাহা, পুলিশ সুপার শ্যামল কুমার নাথ, গোল্ডেন টিউলিপ হোটেল অব এশিয়ার ব্যবস্থাপনা পরিচালক বিমল জে. সিংহ, মনোয়ারা হাকিম প্রমুখ।   ৪৯৩ রুম বিশিষ্ট সী-পার্লÑরয়েল লাক্সারী হোটেল এ- রিসোর্ট বিশ্বমানের সেবা প্রদানে সক্ষম হবে অতিথিরা প্রত্যাশা করেন।  অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন, অনুষ্ঠানে সভাপতি  সী-পার্লÑরয়েল লাক্সারী হোটেল এ- রিসোর্টের চেয়ারম্যান আমিনুল হক শামিম। অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, সী-পার্লÑরয়েল লাক্সারী হোটেল এ- রিসোর্টের পরিচালক ইশরামুল হক টিটু, বিগ্রেডিয়ার জে. মকবুল মুকুল প্রমুখ। অনুষ্ঠানের শুরুতে ফিতা কেটে হোটেলের উদ্বোধন করেন। অনুষ্ঠান শেষে অতিথিদের ক্রেস তুলে দেন পরিচালকবৃন্দ।


Spread the love