টুটুলের আত্মঘাতী গোলে হারলেও সেমিতে বাংলাদেশ

115
Spread the love

স্পোর্টস রিপোর্টার : sports_961676147ভুটানকে হারিয়ে অনূর্ধ্ব-১৯ সাফ চ্যাম্পিয়নশিপে সেমিফাইনালের টিকিট আগেই পেয়ে গেছে বাংলাদেশ। তবে ‘এ’ গ্রুপের চ্যাম্পিয়ন হতে নেপালের বিপক্ষে মাঠে নামে বাংলাদেশের কিশোররা। এ ম্যাচে রোহিতের গোলে বাংলাদেশ এগিয়ে থাকলেও সমতা ফেরায় নেপাল। আর দ্বিতীয়ার্ধের অতিরিক্ত মিনিটে টুটুলের আত্মঘাতী গোলের কারণে ২-১ এ জয় পায় নেপাল। সোমবার (২৪ আগস্ট) স্বাগতিক নেপালের মুখোমুখি হয় বাংলাদেশের যুবারা। ম্যাচের শুরু থেকেই গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হিসেবে সেমির লক্ষ্য নিয়েই এগুতে থাকে সাইফুল বারী টিটুর অধীনে খেলতে যাওয়া বাংলাদেশ। খেলার ১১ মিনিটের মাথায় দারুণ এক জোরালো শটে গোল করে বাংলাদেশকে লিড পাইয়ে দেন রোহিত সরকার। প্রতিপক্ষের ডি-বক্সের বাইরে থেকে ৯ নম্বর জার্সি পরিহিত বাংলাদেশের কিশোরের ডিফেন্স চেড়া বাড়ানো বলে ডানপায়ের জোরালো শটে নেপালের জালে বল জড়িয়ে দেন ৭ নম্বর জার্সি গায়ে খেলতে নামা রোহিত। তবে, ম্যাচে সমতায় ফিরতে বেশি সময় নেয়নি স্বাগতিকরা। ম্যাচের ১৮ মিনিটের মাথায় পেনাল্টি থেকে গোল করেন নেপালের ১৪ নম্বর জার্সি পরিহিত অঞ্জন। ফলে, ১-১ এ সমতা বিরাজ করে। ২৪ মিনিটের মাথায় আরেকটি দলগত প্রচেষ্টায় গোলের সম্ভাবনা জাগিয়ে তোলে নেপাল। বাংলাদেশের গোলরক্ষক আনিসুর রহমান শট রুখে দিলেও ফিরতি বলে আবারো শট নেয় নেপালের স্ট্রাইকার। তবে, এ যাত্রায় বাংলাদেশের ডিফেন্ডাররা দলকে রক্ষা করেন। ৩১ মিনিটের মাথায় নেপালের গোলবারের ডান পাশ দিয়ে আক্রমণ চালায় বাংলাদেশ। তবে, দূর থেকে নেওয়া শট নেপালের ক্রসবার ঘেঁষে বল বাইরে চলে যায়। ম্যাচের প্রথমার্ধে আর কোনো গোল না হলে ১-১ এ সমতা রেখে বিরতিতে যায় দুই দল। প্রথমার্ধে নেপাল ফাউল করে ৫টি। তবে, একটি ফাউল বেশি করে বাংলাদেশ। বিরতির পর আবারো সমান তালে লড়তে থাকে বাংলাদেশ-নেপাল। ৬৮ মিনিটে বাংলাদেশের ডি-বক্সের অল্প বাইরে থেকে ফ্রি-কিক লাভ করে স্বাগতিকরা। এ যাত্রায় সরাসরি বাংলাদেশের গোলরক্ষক আনিসুর বল নিজের নিয়ন্ত্রণে নিয়ে নেয়। ৭৪ মিনিটে স্বাগতিকদের ৮ নম্বর জার্সি পরিহিত সুনিলের বামপায়ের দুরন্ত শট রুখে দেন আনিসুর। পরের মিনিটে আবারো অতিথিদের গোলবার লক্ষ্য করে শট নেন তিনি। তবে, দুইবারই তাকে ব্যর্থ হতে হয়। ৭৮ মিনিটে নেপালের সীমানায় আক্রমণ চালায় বাংলাদেশ। জালে শট নেওয়ার আগেই অফসাইটের জালে জড়িয়ে যান মাশুক জনি। রোহিত আর রাব্বির জুটি থেকে সম্ভাবনা জাগলেও গোলের জন্য অপেক্ষা করতে হয় বাংলাদেশকে। দ্বিতীয়ার্ধের যোগ করা অতিরিক্ত সময়ে আত্মঘাতী গোলে পিছিয়ে পড়ে বাংলাদেশ। অতিথিদের ডি-বক্সের বাইরে থেকে নেওয়া ফ্রি-কিকে হেড করেন নেপালের এক স্ট্রাইকার। আর বল গিয়ে লাগে টুটুলের পায়ে। তাতে নিজেদের জালেই বল জড়িয়ে যায়। ম্যাচের বাকী সময়ে আর কোনো গোল না হলে ২-১ ব্যবধানে জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে নেপাল। বাংলাদেশ দল: আনিসুর রহমান, মো রহমত মিয়া, মোঃ ইমন, মোঃ টুটুল হোসেন বাদশা, মোহাম্মদ সালাউদ্দিন, মাশুক জনি (অধিনায়ক), রোহিত সরকার, মো সাহরিয়ার বাপ্পী, মান্নাফ রাব্বি, বিপ্লব আহমেদ, মোহাম্মদ ইব্রাহিম।


Spread the love