ঠাকুরগাঁও জেলায় দূর্গা পূজার ব্যাপক প্রস্তুতি

74
Spread the love

Durgapuja09-0651-300x225আরিফ হাসান , ঠাকুরগাঁও : হিন্দু ধর্মের সবচেয়ে বড় উৎসব শারদীয় দূর্গাপূজা। পূজার আর মাত্র কয়েক দিন বাকি থাকায় ঠাকুরগাঁও জেলায় দূর্গা পূজার ব্যাপক প্রস্তুতি চলছে। শেষ মুহূর্তে প্রতিটি পাড়া-মহল­ায় চলছে প্রতিমা রঙ করার কাজ। দিন-রাত সমান তালে প্রতিমা রঙয়ের কাজ করে ব্যস্ত সময় পার করছেন প্রতিমা শিল্পীরা।  চলতি বছরে ঠাকুরগাঁও জেলার পাঁচটি উপজেলায় সনাতন ধর্মাবলম্বীরা উৎসবমুখর পরিবেশে পূজা উদযাপন করার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। এখন শুধু কিছু মণ্ডপে বাকি রয়েছে প্রতিমা রঙ করার কাজ।  বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা যায়, মণ্ডপে মণ্ডপে প্রতিমা তৈরির কাজ প্রায় শেষ। অনেক প্রতিমা শিল্পীরা বাড়িতে চলে গেছেন। দুই এক দিনের মধ্যেই তারা এসে রঙ তুলির কাজ করবেন। জেলা শহরসহ পাঁচটি উপজেলায় ৪২৯টি পূজা মণ্ডপে দূর্গাপূজা অনুষ্ঠিত হবে। গত বছরেও এসব মণ্ডপ ঝুঁকিপূর্ণ ছিল। তবে কোনো ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেনি। এ বছরও শান্তিপূর্ণভাবে পূজা পালন হবে বলে পূজা উদযাপন পরিষদের নেতৃবৃন্দ জানান।  প্রতিমা শিল্পীরা জানান, এসব পূজা মণ্ডপে প্রতিমা সরবরাহ করতে দ্রুত কাজ করছেন। তাই খাওয়া-দাওয়া শেষে আরাম করার সময়টুকুও তাদের নেই। তারা জানান, বাঁশ ও খড় দিয়ে প্রতিমা অবকাঠামো তৈরির পর মাটি দিয়ে প্রলেপ দিচ্ছেন শিল্পীরা। বছরের এই সময়টা ব্যস্ততায় কাটলেও অন্য সময় তাদের হাতে কাজ থাকে না। এ ব্যাপারে ঠাকুরগাঁও জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক তপন কুমার ঘোষ জাগো নিউজকে জানান, এ বছর জেলার পাঁচটি উপজেলায় ৪২৯টি মণ্ডপে পূজা অনুষ্ঠিত হবে। শান্তিপূর্ণভাবে ধর্মীয় উৎসবে পূজা পালন করার জন্য তিনি প্রতিটি ধর্মের মানুষের প্রতি আহ্বান জানান। এ ব্যাপারে ঠাকুরগাঁও পুলিশ সুপার ফরহাত আহমেদ বলেন, জেলা ও উপজেলার পূজা মণ্ডপগুলোতে পুলিশ মোতায়েন থাকবে। পূজা মণ্ডপে যারা বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করার চেষ্টা করবে তাদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। তিনি আরো বলেন, যে সমস্ত পূজামণ্ডপ ঝুঁকিপূর্ণ সেগুলোতে বাড়তি নিরাপত্তা বলয় তৈরি করা হবে।


Spread the love