ঢাকায় বোমা বিস্ফোরণ, নিহত ১

69
Spread the love

08স্টাফ রিপোর্টার : রাজধানীর পুরান ঢাকার হোসেনী দালানের সামনে পরপর তিনটি বোমা বিস্ফোরণেসাজ্জাদ হোসেন সানজু (১৮) নামে এক যুবক নিহত হয়েছেন। এ ছাড়া আহত হয়েছেন অর্ধশতাধিক ব্যক্তি। আহতদের ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতাল ও মিটফোর্ড হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। শুক্রবার রাত দেড়টার দিকে এ বোমা বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। ঢাকা মেডিকেলে চিকিৎসাধীন গুরুতর আহতরা হলেন- রিনা খাতুন (৩৮), তার ভাই সানোয়ার হোসেন (৬৩), রনি (২৫), নুর হোসেন (৫৫), আয়েশা আক্তার (৫০), জামাল হোসেন (৫০) আইসিউতে, রুনা বেগম (৩০), সোহান (১১), মনির হোসেন (৩৬), হালিমা আক্তার (২০) ও কামাল হোসেন (২২)। এ ছাড়া আবদুর রহিম (৩০), নাঈম হোসেন (৩৫), লাবনী আকতার (১৪), আয়েশা আকতার (১২), সালাউদ্দিন (৪৫), তুহিন (১২), সুদীপ (২১), মাহবুবুর রহমান (২৬), রাকিব হোসেন (২৬) ও আয়াত উদ্দিন (২৬) চিকিৎসা নিয়ে চলে গেছেন। এদিকে, মিটফোর্ড হাসপাতালে আহত ৩১ জনকে নেওয়া হয় বলে হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক মাসুদুর রহমান জানান। তাদের অনেকেই মিটফোর্ড হাসপাতাল থেকে প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে ফিরে গেছেন বলে চকবাজার থানার ওসি জানিয়েছেন। ইমরাম হোসেন নামে এক প্রত্যক্ষদর্শী জানান, তাজিয়া মিছিল উপলক্ষে হোসেনী দালানের সামনে রাতে সবাই জড়ো হন। দেড়টার দিকে হঠাৎ পরপর তিনটি বোমার বিস্ফোরণ ঘটে। এ সময় অর্ধশতাধিক লোক আহত হন। আহতদের উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। ঢামেক হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির ক্যাম্প ইনচার্জ মোজাম্মেল হক জানান, আহতদের মধ্যে সানজু নামে এক যুবক রাত ৩টার দিকে মারা যান। এ ছাড়া ১০ জনের অবস্থা গুরুতর। তাদের শরীরের বিভিন্ন স্থানে স্প্লিন্টার বিদ্ধ হয়েছে। সবার চিকিৎসা চলছে। হোসেনী দালান ছাড়াও রাজধানীর মোহাম্মদপুর, মিরপুর, মগবাজার ও পল্টন থেকেও তাজিয়া মিছিল বের করেন শিয়া মতাবলম্বীরা। ওই হামলার পর মোহাম্মদপুরে শিয়াদের নিরাপত্তায় বাড়তি পুলিশ-র‌্যাব মোতায়েন করা হয়েছে বলে মোহাম্মদপুর শিয়া মসজিদ কমিটির সভাপতি রাশেদ হায়দার জানিয়েছেন।


Spread the love