প্রেমের টানে নেত্রকোনার যুবতি হবিগঞ্জে এসে গণধর্ষণের শিকার

109
Spread the love

we26হবিগঞ্জ প্রতিনিধি : মোবাইল ফোনে প্রেমের মাধ্যমে খবর দিয়ে এনে এক যুবতিকে গণধর্ষণ করেছে একদল লম্পট। এ ব্যাপারে যুবতি বাদি হয়ে হবিগঞ্জের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আদালতে মামলা করেছে। মামলাটি বিচারক আমরে নিয়ে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়ার জন্য পুলিশকে নির্দেশ দিয়েছেন। মামলার বিবরণে জানা যায়, হবিগঞ্জ সদর উপজেলার বরমপুর গ্রামের আলীম উল্লার পুত্র মাদক সম্রাট ৬ সন্তানের জনক সেলিম মিয়া (৪০) এর রং নম্বারে পরিচয় হয় নেত্রকোনা জেলার মাধুরপাড়া গ্রামের যুবতির। এক পর্যায়ে তাদের মধ্যে প্রেমের সর্ম্পক গড়ে উঠে। সেলিমের কথায় যুবতিটি পাগল হয়ে যায়। এক পর্যায়ে সেলিমকে পাবার আসায় শায়েস্তাগঞ্জ চলে আসে। গত ২৮ আগস্ট রাত ১২টার সময় সেলিম তার বন্ধু সাদেক মিয়া (৩০) এর বাড়িতে নিয়ে যুবতিকে গণধর্ষণ করে। ধর্ষণের ফলে সে অসুস্থ হয়ে পড়ে। ওই এলাকার এক মহিলা তাকে পরের দিন হাসপাতালে এনে চিকিৎসা করায়। এরই মধ্যে সেলিম চুরির ঘটনায় জনতার হাতে আটক হয়ে হবিগঞ্জ কারাগারে যায়। সাথী সুস্থ হয়ে বুধবার দুপুরে তার আইনজীবি মোঃ আঙ্গুর আলীর মাধ্যমে আদালতে মামলা দায়ের করে।


Spread the love