বিদেশী নাগরিক হত্যাকান্ডের সাথে বিএনপি-জামায়াত জড়িত- আ.ক.ম মোজাম্মেল হক

67
Spread the love

12179966_748299498615017_280237100_nআরিফ হাসান, ঠাকুরগাঁও : বিদেশী নাগরিক হত্যাকান্ডের সাথে বিএনপি-জামায়াত জড়িত বলে মন্তব্য করেন মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ.ক.ম মোজাম্মেল হক। তিনি আজ বুধবার সকালে ঠাকুরগাঁও জেলা মুক্তিযোদ্ধাদের নব-নির্মিত কমপ্লেক্স ভবন উদ্বোধন শেষে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে এ কথা বলেন। তিনি আরো বলেন, বিদেশী নাগরিককে হত্যা করে বাংলাদেশে অস্থিতিশীল পরিবেশ সৃষ্টি করার জন্য বিএনপি-জামায়াত উঠে পড়ে লেগেছে। কিন্তু বর্তমান সরকার তা কখনও হতে দেবে না। তিনি বিএনপিকে উদ্দেশ্যে করে বলেন, ‘নির্বাচনের ধোঁয়া তুলে দেশকে অস্থিতিশীল করার চেষ্টা করবেন না। বার বার নির্বাচন করে সরকারের পালাবদলের কোনো সুযোগ নেই। এ দেশকে উন্নত রাষ্ট্রে পরিণত করার জন্য সরকার দীর্ঘমেয়াদি সরকার।’ মন্ত্রী বলেন, ‘এ দেশের জনগণ উন্নয়ন দেখতে চায়। তারা পালাবদলের নামে হাওয়া ভবন দেখতে চায় না।’ এ সময় খালেদা জিয়াকে তার বিগত দিনের কর্মকা গুলো বিবেচনা করে জনগণের কাছে যাওয়ার পরামর্শ দেন তিনি।তিনি আরোও বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যে অর্জন করেছেন, সেই বিরাট প্রপ্তিকে ¤øান করতে ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে। আজকে বাংলাদেশের পরিস্থিতিকে ঘোলাটে করার চেষ্টা করা হচ্ছে। বাংলাদেশের নিরাপত্তা ব্যবস্থাকে বিদেশিদের কাছে প্রশ্নবিদ্ধ করতে ষড়যন্ত্র চলছে। আমরা সকল ষড়যন্ত্র মোকাবেলা করে এগিয়ে যাচ্ছি এবং এগিয়ে যাবো।’ মন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশকে স্বাধীন করতে পুরো জাতি যেমন ঐক্যবদ্ধ হয়েছিল তেমনি আজ যুদ্ধাপরাধীদের বিচারের জন্য জাতি ঐক্যবদ্ধ। বিএনপি-জামায়াত যুদ্ধাপরাধীদের বিচার থামানোর জন্য যত চেষ্টাই করুক কোন লাভ হবেনা। যুদ্ধাপরাধীদের বিচার এই বাংলার মাটিতেই হবে। উদ্বোধন শেষে নবনির্মিত কমপ্লেক্স ভবনের হলরুমে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার জীতেন্দ্র নাথ রায়ের সভাপতিত্বে এসময় বক্তব্য দেন, পানিসম্পদ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সভাপতি ও ঠাকুরগাঁও-১ আসনের সংসদ সদস্য রমেশ চন্দ্র সেন, ঠাকুরগাঁও-২ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ দবিরুল ইসলাম, জেলা প্রশাসক মূকেশ চন্দ্র বিশ্বাস, জেলা পরিষদ প্রশাসক ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক মুহা: সাদেক কুরাইশী, মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের কমপ্লেক্স ভবন নির্মাণ প্রকল্পের পরিচালক মাহমুদ হাসান প্রমুখ গণপুর্ত অধিদপ্তরের তত্বাবধানে প্রায় ১ কোটি ৮০ লক্ষ টাকা ব্যয়ে ৩ তলা বিশিষ্ট ঠাকুরগাঁও জেলা মুক্তিযোদ্ধাদের কমপ্লেক্স ভবন নির্মাণ করা হয়।


Spread the love