রংপুরে পটলের কেজি ৩ টাকা

70
Spread the love

potol1 bdরংপুর প্রতিনিধি : রংপুরের মিঠাপুকুর উপজেলায় প্রতি কেজি পটল ৩ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে। পটলের দরপতনের ফলে ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছে কৃষকরা। তারা ৪ মন পটল বিক্রি করে একজন শ্রমিকের মজুরী মেটাতে হচ্ছে। শুক্রবার বিকেলে রংপুরের মিঠাপুকুর উপজেলার শঠিবাড়ী, জায়গীরহাট, রানীপুকুর, বদলীপুকুর, বৈরাগীগঞ্জ, দমদমা, বালারহাট, মোলংহাট, লতিবপুর, শুকুরেরহাট, রংপুর সদরের পালিচাড়া, জানকী ধাপেরহাট, শ্যামপুরসহ বিভিন্ন হাট বাজার ঘুরে পটলের দরপতনের চিত্র দেখা গেছে। কৃষকদের সাথে কথা বলে জানা গেছে, বর্তমানে প্রতিমন পটল ৭০-৮০ টাকা দরে পাইকারী বিক্রি হচ্ছে। আর খুচরা বাজারে ৩কেজিতে বিক্রি হচ্ছে। মিঠাপুকুর উপজেলার কাফ্রিখাল ইউনিয়নের আলীপুর গ্রামের কৃষক আফতার হোসেন আততাব ও লতিবপুর বাতায়নের মুসা মনছুর জানান, প্রথমদিকে প্রতিমন পটল ৯০০ টাকা দরে বিক্রি করেছে। কিন্তু এখন সেই পটলই মন প্রতি ৮০ টাকা দরে বিক্রি করতে হচ্ছে। অন্যদিকে উত্তরবঙ্গের অন্যতম বৃহত্তর হাট শঠিবাড়ী এলাকার খুচরা ব্যবসায়ি মাহমুদ আলী বলেন, প্রতি কেজি পটল ২ টাকা দরে কিনে ৩ টাকায় বিক্রি করছেন। এতে একজন শ্রমিকের দৈনিক মজুরী ৩০০-৩৫০ টাকা প্রদান করতে হলে কৃষককে ৪ থেকে সাড়ে ৪ মন পটল বিক্রি করতে হচ্ছে। মিঠাপুকুর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা খোরশেদ আলম বলেন, মিঠাপুকুর উপজেলাসহ রংপুর অঞ্চলে পটলের উৎপাদন প্রতি বছরের ন্যায় এবার বেশী হেেয়ছে। প্রতিদিন বাজারে প্রচুর পরিমানে পটল সরবরাহ হচ্ছে। উৎপাদন বেশী ও সরবরাহের কারণে পটলের দরপতন হয়েছে।


Spread the love