শিবিরকর্মী সন্দেহে ছাত্রলীগের হামলায় যশোরে কলেজ ছাত্র নিহত : আহত ২

80
Spread the love

bdfযশোর প্রতিনিধি : ছাত্রলীগের কর্মীদের হামলায় হাবিবুল্ল¬াহ (২২) নামে যশোর এম এম কলেজের এক ছাত্র নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছে দু’জন। গতকাল সোমবার বিকেলে কলেজ এলাকায় এ ঘটনা ঘটেছে। তবে শিবিরকর্মী সন্দেহে তাদেরকে পিটিয়েছে সাধারণ ছাত্ররা জানালেন কোতোয়ালী থানার ওসি। আহতদেরকে যশোর ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এরমধ্যে আল-মামুনের অবস্থা গুরুতর বলে চিকিৎসকরা জানান। নিহত হাবিবুল্ল¬াহ শার্শা উপজেলার তেবাড়িয়া এলাকার নিয়ামত আলীর ছেলে। আহত অপর দু’জন হলেন বাঘারপাড়ার ছোট খুদড়া গ্রামের মোহাম্মদ আলীর ছেলে কামরুল হাসান (২২) ও মাগুরার শালিখার আতিয়ার রহমানের ছেলে আল-মামুন (২২)। নিহত ও আহত তিনজনই যশোর এম এম কলেজের অর্থনীতি বিভাগের তৃতীয়বর্ষের ছাত্র। কলেজের পূর্ব পাশে ‘নির্ঝর’ নামে একটি মেসে থাকতেন তারা। যশোর কোতোয়ালী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সিকদার আক্কাস আলী জানান, গতকাল সোমবার বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে এম এম কলেজ এলাকার একটি ছাত্রাবাসে শিবির কর্মীরা গোপন বৈঠক করছিল। এ খবর পেয়ে ছাত্রলীগ কর্মীরা তাদেরকে ডেকে জিজ্ঞাসাবাদ করে। পরে বিষয়টি নিয়ে বাক-বিতন্ডা ও উত্তেজনার সৃষ্টি হলে এক পর্যায়ে স্থানীয় সাধারণ ছাত্ররা তাদেরকে গণপিটুনি দেয়। পুলিশ খবর পেয়ে তিনজনকেই আহত অবস্থায় উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে। সন্ধ্যায় আহতদের মধ্যে হাবিবুল্ল¬াহ মারা যায়। এর আগে তাদের ছাত্রাবাসের পেছন থেকে একটি হাতবোমা ও বেশকিছু জিহাদী বই উদ্ধার করে পুলিশ। আহত আল-মামুন জানান, বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে তারা তিন বন্ধু সরকারি এম এম কলেজ ক্যাম্পাসের দক্ষিণ পার্শ্বের রাস্তায় দাঁড়িয়ে কথাবার্তা বলছিলেন। এ সময় ছাত্রলীগের কর্মী পরিচয়ে ৪/৫ জন লোক এসে তাদের তিনজনকে পাশের আশিক ছাত্রাবাসে নিয়ে বেধড়ক পিটিয়ে গুরুতর আহত করে। তবে যশোর জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার হোসেন বিপুল জানিয়েছেন, এ ঘটনার সাথে ছাত্রলীগ কর্মীদের কোনো সম্পৃক্ততা নেই। শিবিরের গোপন বৈঠকের খবর পেয়ে সাধারণ ছাত্ররা তাদেরকে মারপিট করেছে। আহত কামরুলের মা আনোয়ারা বেগম বলেন, তার ছেলে কোন রাজনৈতিক দলের সাথে সম্পৃক্ত ছিল না। তিনদিন বাড়িতে থেকে গতকাল সোমবার যশোর এসেছিল পরীক্ষা দিতে। তবে জেলা জামায়াতের একজন শীর্ষ নেতা নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, নিহত ও আহতরা শিবিরের কর্মী। স্থানীয় ছাত্রলীগের কর্মীরা তাদের ওপর হামলা চালায়।

Spread the love