শেখ হাসিনা সরকার থাকলে দেশে উন্নয়ন হয় : সাবেক মন্ত্রী এ্যাডভোকেট মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার এমপি

42
Spread the love

মো: আফজাল হোসেন, দিনাজপুর প্রতিনিধি : দিনাজপুর-৫ আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রনালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সভাপতি ও সাবেক মন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা এ্যাডভোকেট মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার এমপি বলেছেন, শেখ হাসিনার সরকার থাকলে দেশে উন্নায়ন হয়। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা প্রধান মন্ত্রী হওয়ায় আজ সারাদেশে মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিস্তম্ভ নির্মান হচ্ছে।
সাবেক মন্ত্রী এ্যাডভোকেট মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার এমপি বুধবার সকাল ১১ টায় দিনাজপুরের ফুলবাড়ী উপজেলার বারাই হাট আখিরা পুকুর পাড় বধ্যভূমি স্মৃতিস্তম্ভ নির্মান কাজের উদ্বোধন উপলক্ষে, বারাই হাটে সুধিসমাবেশ প্রধান অথিতির বক্তব্যে তিনি উপরোক্ত কথা বলেন।
সুধি সমাবেশে আলাদিপুর ইউনিয়ন চেয়ারম্যন মোজাফ্ফর রহমান সরকারের সভাপতিত্বে বিশেষ অথিতি হিসেবে বক্তব্য রাখেন উপজেলা চেয়ারম্যন আতাউর রহমান মিল্টন, উপজেলা নির্বাহী অফিসার রিয়াজ উদ্দিন। এতে অনান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার লিয়াকত আলী, আখিরা গণহত্যার প্রত্যক্ষ স্বাক্ষী হরলাল রায় ও উষারানী।
মুক্তিযুদ্ধ বিষয় মন্ত্রনালয় এর ১৯৭১ মহান মুক্তিযুদ্ধ চলাকালে পাকিস্তানী হানাদার বাহিনী কর্তৃক গণহত্যার জন্য ব্যবহৃত বধ্যভূমিসমুহ সংরক্ষণ ও স্মৃতিস্তম্ভ নির্মান (দ্বিতীয় পর্যায়)শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় ৬৮ লাখ ৩৪ হাজার ৯৫৭ টাকা ব্যায় এই স্মৃতিস্তম্ভ নির্মান করা হচ্ছে।
প্রধান অথিতি এ্যাডভোকেট মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার এমপি বলেছেন সারা বিশ্বে করোনার মহামারী শুরি হলেও বাংলাদেশের উন্নায়ন থেমে যায়নি, তাই উন্নায়নের ধারা অব্যহত রাখতে শেখ হাসিনার সরকার বারবার গঠন করার জন্য সবাইকে ঐক্যবদ্ধ থাকার আহব্বান জানান।
সুধিসমাবেশে ভাগ্যের জোরে বেচেঁ যাওয়া গণহত্যর প্রত্যক্ষ স্বাক্ষীদের বর্ননা শুনে সকলে অশ্রুসজল হয়ে পড়ে।
উল্লেখ্য ১৯৭১ সালের ১৭ এপ্রিল মুক্তিযুদ্ধে ভারতে পালিয়ে যাওয়ার সমায় ফুলবাড়ী, উপজেলার বারাই আখিরা পুকুর পাড়ে, নবাবগঞ্জ উপজেলার শতাধিক নারী পুরুষ ও শিশুদের হত্যা করে পাকিস্তানী হানাদার বাহিনী। এই নির্মম ঘটনার স্বাক্ষী হিসেবে স্মৃতিস্তম্ভ নির্মান করা হয়।


Spread the love