প্যারিসে ফ্রেঞ্চ – বাংলা স্কুলের বিজয় দিবস উদযাপন

54
F-B SCHOOL copyএনায়েত হোসেন সোহেল, (প্যারিস), ফ্রান্স থেকে : বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে প্যারিসে ফ্রেঞ্চ- বাংলা স্কুলে মহান বিজয় দিবস উদযাপন করা হয়েছে। ১৯ ডিসেম্ভর শনিবার বিকেলে লা কর্ণভের ফিলিপ রু অডিটরিয়ামে স্কুলের শতাধিক কোমলমতি শিশুদের আনন্দ উল্লাসের মধ্যে দিয়ে বিজয় দিবস উদযাপন করা হয়। বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংহতি পরিষদ ফ্রান্সের উদ্যেগে আয়োজিত বাংলাদেশের জাতীয় সংগীত দিয়ে শুরু হওয়া অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বীর মুক্তিযোদ্ধা জামিরুল ইসলাম মিয়া। আমিন খান হাজারীর পরিচালনায় এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ফ্রান্সে নিযুক্ত বাংলাদেশ দুতাবাসের হেড অব চ্যান্সরী হজরত আলী খান। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন এডভোকেট কাজী আব্দুল্লাহ আল মামুন,যুব ইউনিয়ন ফ্রান্স শাখার সভাপতি রামেন্দ্র কুমার চন্দ্র,সাধারণ সম্পাদক জাফর শাহ ,ফ্রান্স আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ সভাপতি ওয়াহিদ ভার তাহের,ম্যাডাম দানিয়েল জিবার টিনি,মুক্তিযোদ্ধা  সংহতি পরিষদের সহ সভাপতি আশরাফুল ইসলাম,মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল মতিন,স্কুলের শিক্ষিকা হাসনাত জাহান প্রমুখ। এ সময় বক্তারা তাদের বক্তব্যে বলেন, আজকের শিশুরাই আগামী দিনের ভবিষ্যত।  প্রবাসের মাঠিতে এ সকল কোমলমতি শিশুদেরকে আমাদের বেশি বেশি করে বাংলাদেশকে , বাংলাদেশের স্বাধীনতা থেকে শুরু করে ভাষা আন্দোলন সহ সকল অর্জন খুবই সহজ ও সাবলীল ভাবে শিখাতে হবে। তাহলে দেশের প্রতি তাদের দেশ প্রেম জাগবে। বাংলাদেশকে নিয়ে তারা অনেক গৌরব করতে পারবে। মহান বিজয় দিবসের আলোচনা শেষে লিটন হাসানের ব্যবস্থাপনায় শুরু হয় মনোজ্ঞ সাংস্মৃতিক অনুষ্ঠানের।  সাইফুল ইসলামের পরিচালনায় শুরুতেই স্কুলের শিক্ষাথীরা দেশত্ববোধক গান পরিবেশন করে। পরে একে একে চলে ছড়া,কবিতা আবৃত্তি। এতে অংশ নেন প্রিয়ন্তি,অনুশকা,সুর্য,আরশি,রাহুলদে,সৌরভ,লিমা,ওয়াশি,জদিতা। পরে অতিথি শিল্পীরা সাংস্মৃতিক অনুষ্ঠানে অংশ গ্রহণ করেন। কবিতা আবৃত্তি করেন জুবাইদা খান,শম্পা বড়ুয়া,সর্মিষ্টা বড়ুয়া ও গিয়াস বাবু।   সঙ্গীত পরিবেশন করেন রোজী মজুমদার,মৌসুমী ভট্টাচার্য ,নাজনীন খন্দকার।  পুথি পথ করেন কাব্য কামরুল। বাশি শুনান সন্দীপ। এ সময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্তিত ছিলেন,স্কুলের শিক্ষিকা ফাতেমা খাতুন,জুবায়দা খান,শাহেদা খানম,রানী তাহের,নাজনীন খন্দকার,শর্মিষ্ঠা বড়ুয়া।